সম্মুখ যোদ্ধাদের গুরুত্ব দিয়ে টিকা বিতরণ করা হবে: পাবনা ডিসি

নিজস্ব সংবাদদাতা
পাবনা জেলা প্রশাসক কবীর মাহমুদ বলেছেন- করোনা মহামারি প্রকোপ থেকে রক্ষা পেতে পরিকল্পিত কাজ করছে বর্তমান সরকার। যথাযথা পদক্ষেপ নেয়ার পরেও করোনা প্রকোপে দেশে অর্থনৈতিক উন্নয়নে ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। সবচেয়ে বেশী ক্ষতিগ্রস্থ হচ্ছে শিক্ষায়। বড় সংখ্যক শিক্ষার্থী ঝড়ে পরার সম্ভাবনা রয়েছে।

তিনি আরও বলেন, সরকার শিক্ষার্থী এবং শিক্ষা কার্যক্রম নিয়ে সর্তকতার সাথে সিদ্ধান্ত নিচ্ছে। সরকারের সিদ্ধান্তের বাইরে গেলে বড় ধরণের ক্ষতি হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।সরকারে সচেষ্ট পদক্ষেপ এর পেক্ষাপটে উন্নন দেশের সাথে সাথে বাংলাদেশেও প্রতিষেধক টিকা পাওয়া যাবে। টিকা বিতরণের জন্য জেলা ও উপজেলা পর্যায়ে কমিটি করা হয়েছে। সম্মুখ যোদ্ধাদের গুরুত্ব দিয়ে টিকা বিতরণ করা হবে।

রবিবার সকালে পাবনা জেলা প্রশাসনের আয়োজনে জুম সফটওয়ারের (ভার্চুয়াল) মাধ্যমে জেলা উন্নয়ন সমন্বয় কমিটির মাসিক সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

সভাসুত্রে জানাযায় “নো মাস্ক নো সার্ভিস” “করোনা মোকাবেলা কার্যক্রম” বাস্তবায়নে আগামী মঙ্গলবার সকল উপজেলায় জনসচেতনার জন্য মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হবে। করোনা রোগীদের পরীক্ষার ব্যবস্থা বাড়ানো হযেছে। আগামী ২৫ ডিসেম্বরের মধ্যে সকল অফিসের ওয়েব পোর্টাল আপডেট করতে হবে। সকল স্কুলে লটারীর মাধ্যমে ভর্তি ব্যবস্থা কার্যক্রম সম্পন্ন করা হবে।

পাবনা জেলা প্রশাসক কবীর মাহমুদ এর সভাপতিত্বে সভায় এসময় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন-জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা কাজী আতিয়ুর রহমান, সিভিল সার্জন (ভারপাপাপ্ত) ডা. আবু জাফর, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক শাহেদ পারভেজ, এলজিইডির নির্বাহী প্রকৌশলী মকলেসুর রহমান, জেলা শিক্ষা অফিসার মো.মোসলেম উদ্দিন, বিভাগীয় বন কর্মকর্তা মাহবুব আলম, বাসস ও ভোরের কাগজ প্রতিনিধি সহকারী অধ্যাপক রফিকুল ইসলাম সুইট, জেলা কালচারাল অফিসার মারুফা মঞ্জুরী খান, সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তাহমিনা আক্তার রেইনা, অধ্যক্ষ জমিদার রহমান প্রমুখ।