পাবনায় ইউএনও’র মোবাইল নম্বর ক্লোন, প্রতারণার চেষ্টা

পাবনার ভাঙ্গুড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মোহাম্মদ নাহিদ হাসান খানের ব্যবহৃত সরকারি মোবাইল নম্বর ক্লোন করে প্রতারণা চেষ্টার অভিযোগ পাওয়া গেছে। তবে এ ঘটনায় এখনও পর্যন্ত কেউ প্রতারণার স্বীকার হয়নি বলে জানানো হয়েছে।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, বুধবার (১৬ মার্চ) সকালে ইউএনও’র মোবাইল নম্বর ক্লোন করে উপজেলার কয়েকজন ইউপি চেয়ারম্যানকে ফোন দেয় একটি প্রতারক চক্র। পরে তাদের কাছে কাবিখা প্রকল্পের কথা বলে অন্য আরো দুটি ফোন নম্বর পাঠায় চক্রটি।

ইউএনও পরিচয় দিয়ে তাদের জানানো হয়, ‘কাবিখা প্রকল্প আসছে। আমার অন্য একটি নম্বর দিচ্ছি কল দেন।’ পরে বিষয়টি ইউএনও অফিসে যোগাযোগ করলে অফিস থেকে তাদের বলা হয় স্যারের নম্বর ক্লোন করা হয়েছে।

ভাঙ্গুড়া উপজেলার খানমরিচ ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মনোয়ার হোসেন মিঠু বলেন, ‘বুধবার সকালে ইউএনও স্যারের নম্বর থেকে ফোন দিয়ে কাবিখা প্রকল্প আসছে বলে আমাকে অন্য একটি নম্বর থেকে ফোন দিতে বলে । আমি বিষয়টি ইউপি সচিবকে যাচাই করতে বলি। পরে সচিব আমাকে জানায় যে স্যারের নম্বর ক্লোন হয়েছে। তখনই আমার ফোন নম্বর দিয়ে সকল চেয়ারম্যানকে এ বিষয়ে সতর্ক করা হয়।’

ভাঙ্গুড়া উপজেলা পরিষদেও নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মোহাম্মদ নাহিদ হাসান খান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, ‘এ বিষয়ে জরুরী নোদিশ দিয়ে ইউপি সদস্য এবং চেয়ারম্যানকে সতর্ক করা হয়েছে। বিষয়টি তিনি ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদেরও অবহিত করা হয়েছে। থানা পুলিশকেও অবহিত করা হয়েছে।’

ভাঙ্গুড়া থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ ফয়সাল বিন আহসান বলেন, ‘ইউএনও অফিস থেকে আমাদেরকে বিষয়টি জানানো হয়েছে। প্রতারক চক্রকে চিহ্নিত করে আইনের আওতায় আনার চেষ্টা করা হচ্ছে।’