ভাইয়ের পর এবার মাশরাফির স্ত্রীও করোনা আক্রান্ত

দুঃসংবাদ পিছু ছাড়ছে না মাশরাফি বিন মুর্তজার ভক্তদের। কয়েকদিন আগে প্রথম আক্রান্তের ১৪ দিন পর দ্বিতীয়বারের মতো করোনা ভাইরাসে পরীক্ষা করে ফলাফল পজিটিভ এসেছে। ছোট ভাই ও শ্বাশুড়ির পর এবার নরাইলই এক্সেপ্রেসের স্ত্রী সুমনা হক সুমিও করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হলেন।

সোমবার (৬ জুলাই) রাতে মাশরাফির পারিবারিক সূত্র জানায়, বর্তমানে ঢাকার বাসায় থেকে মাশরাফির স্ত্রী সুমনা হক সুমি চিকিৎসা নিচ্ছেন। সুমির শারীরিক অবস্থা ভাল।

মাশরাফি করোনা আক্রান্ত হওয়ার দুই দিনপর তার একমাত্র ছোট ভাই মুরসালিন বিন মর্তুজা (সিজার) করোনা আক্রান্ত হন। চিকিৎসকের পরামর্শে ঢাকার বাসায় আইসোলেশনে রয়েছেন মাশরাফি, মাশরাফির ছোট ভাই সিজার এবং স্ত্রী সুমনা হক সুমি।

গত ২০ জুন করোনা ভাইরাস ধরা পড়ে জাতীয় দলের সাবেক সফলতম অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা। এর ৪ জুলাই দ্বিতীয়বার নমুনা পরীক্ষা করেও করোনা পজিটিভ হয়েছেন বাংলাদেশ দলের সাবেক অধিনায়ক ও নড়াইল-২ আসনের ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের সাংসদ মাশরাফি।

২৩ জুন তার ছোট ভাই মোরসালিন বিন মুর্তজার করোনা পজিটিভ ধরা পড়ে। করোনাকালে বড় ভাই মাশরাফির সঙ্গে বিভিন্ন কাজে সম্পৃক্ত ছিলেন মোরসালিন। অনেক সহযোগিতা করেছেন তাঁকে। এর আগে মাশরাফির শাশুড়িও করোনায় আক্রান্ত হয়েছিলেন।

উল্লেখ্য, ম্যাশের চিকিৎসার দেখভাল করছেন প্রধানমন্ত্রীর ব্যক্তিগত চিকিৎসক এ বি এম আবদুল্লাহ। মাশরাফির সার্বক্ষণিক খোঁজখবর রাখছে বিসিবির মেডিক্যাল বিভাগ।

বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন সব সময় তার খোঁজ নিচ্ছেন। তিনিই মাশরাফিকে নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর ব্যক্তিগত চিকিৎসক এ বি এম আবদুল্লাহর সঙ্গে কথা বলে প্রেসক্রিপশনের ব্যবস্থা করেন।