পাবনায় স্কুল থেকে ৪ জামায়াতকর্মী গ্রেফতার, পুলিশের দাবি ‌‘সরকার উৎখাতের পরিকল্পনা’

পাবনার সাঁথিয়া থেকে জামায়াত ইসলামীর ৫ কর্মীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। শনিবার দুপুরে সাঁথিয়া প্রি-ক্যাডেট স্কুল থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়।

তবে পুলিশ জানায়, জামায়াতের এই চার কর্মী সরকার উৎখাতের জন্য গোপন বৈঠক করছিল।

গ্রেফতারকৃতরা হলো- চাটমোহর উপজেলার ধুলাউড়ি গ্রামের সুবল প্রামানিকের ছেলে ও বোয়াইলমারি কামিল মাদ্রাসার শিক্ষক আবুল কালাম আজাদ (৪৫), সাঁথিয়া উপজেলার কোনাবাড়িয়া গ্রামের ইসমাইল হোসেনের ছেলে আ:গফুর (৪৬), শিবরামপুর গ্রামের আবু ইউসুফের ছেলে জাকারিয়া রাজা (৩০) ও আলোকদিয়ার গ্রামের আরজানের ছেলে জয়নাল আবেদীন (৫৫)।

সাঁথিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আসাদুজ্জামান জানান, শনিবার (১৮ জুলাই) বেলা ১২ টার দিকে সাঁথিয়া  পৌর জামায়াতের আমীর অধ্যাপক আ: সাত্তারের প্রতিষ্ঠান সাঁথিয়া প্রি ক্যাডেট স্কুলে সরকারকে  উৎখাতের পরিকল্পনায় প্রায় ৫০/৬০ জনের একটি গোপন বৈঠক চলছিল। এ সময় তারা অনলাইনে জামায়াতের কেন্দ্রীয় নেতাদের সাথে পরামর্শ করছিল। খবর পেয়ে সাঁথিয়া থানা পুলিশ তাৎক্ষণিক অভিযান চালিয়ে উল্লেখিত ব্যক্তিদের গ্রেফতার করে এবং কিছু জিহাদী বই উদ্ধার করে। এ সময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে অন্যরা পালিয়ে যায়।

এ ব্যাপারে  স্কুলটির অধ্যক্ষ জামায়াত নেতা আ: সাত্তারের সাথে মোবাইলে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলে তাকে পাওয়া যায়নি।

উল্লেখ্য, জামায়াত ইসলামীর সাবেক আমির ও চারদলীয় জোট সরকারের মন্ত্রী প্রয়াত মাওলানা মতিউর রহমান নিজামীর বাড়ির পাশে উল্লেখিত এই স্কুলটি। পরে উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশে পুলিশ স্কুলটি সিলগালা করে দিয়েছে।