পাবনায় ট্রাকচাপায় বাবা-মেয়ে নিহত, মা গুরুতর

পাবনা সদর উপজেলায় বালুবহন করা ট্রাকচাপায় মোটরসাইকেল আরোহী বাবা ও মেয়ে নিহত হয়েছেন। এঘটনায় মা আহত হয়েছেন। তার অবস্থা গুরুতর।

শুক্রবার (২ এপ্রিল) সকাল সাড়ে ৯টার দিকে উপজেলার তারাবাড়িয়া বাজার এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। দুর্ঘটনার পর বিক্ষুব্ধ এলাকাবাসী ট্রাকটি আটক করে ভাঙচুর চালায়।

নিহতরা হলেন- সদর উপজেলার দোগাছি ইউনিয়নের চর আশুতোষপুর গ্রামের আলমগীর হোসেন (৩৬) ও তাঁর মেয়ে সিনহা (৬)। আহত হয়েছেন আলমগীর হোসেনের স্ত্রী নাসরিন আক্তার (৩০)।

বিষয়টি নিশ্চিত করে সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নাছিম আহম্মেদ জানান, পাবনা থেকে মোটরসাইকেলে স্ত্রী-সন্তানকে নিয়ে সুজানগরের দিকে যাচ্ছিলেন আলমগীর হোসেন। পরে তারাবাড়িয়া বাজার এলাকার কাছে রাস্তার পাশে মোটরসাইকেল থামিয়ে ফোনে কথা বলছিলেন তিনি। এ সময় বালুবহন করা একটি ট্রাক পেছন থেকে মোটরসাইকেলটিকে সজোরে ধাক্কা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই আলমগীর ও তাঁর মেয়ে সিনহা মারা যায়। এ সময় আহত হন আলমগীরের স্ত্রী নাসরিন খাতুন। তাঁকে উদ্ধার করে সুজানগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পাঠানো হয়েছে। পরে উন্নত চিকিৎসার জন্য তাঁকে পাবনা ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।

তিনি আরও জানান, দুর্ঘটনার পরই ট্রাকের চালক ও তার সহকারী পালিয়ে যান। পরে বিক্ষুব্ধ এলাকাবাসী ট্রাকটিতে ভাঙচুর চালায়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে মরদেহ উদ্ধার করে।