ঝাঁকে ঝাঁকে উড়ছে ভারত-চীনের যুদ্ধবিমান, কেঁপে উঠলো লাদাখ

উত্তপ্ত হয়ে উঠেছে ভারত-চীনের সম্পর্ক। লাদাখ সীমান্তে গলওয়ান উপত্যকায় চীনা সেনাদের সঙ্গে সংঘর্ষের পর সতর্ক অবস্থানে আছে দুই দেশের সেনারা। দুই দেশই সমানভাবে যুদ্ধের প্রস্তুতি নিয়ে রেখেছে। এমন পরিস্থিতির মধ্যে লাদাখ সীমান্তে উড়ল একের পর এক যুদ্ধবিমান। উড়ল মিলিটারি হেলিকপ্টারও।

শনিবার প্রকাশ্যে এসেছে সেই ছবি। ছবিতে দেখা যায়, একের পর এক যুদ্ধবিমান উড়ছে চীন সীমান্তের আকাশে। উড়ছে ভারতের মিগ, সুখোই মডেলের ভয়ঙ্কর যুদ্ধবিমান। অ্যাপাচি হেলিকপ্টারও উড়তে দেখা গেছে বলে সংবাদ প্রকাশ করেছে ভারতের স্থানীয় সংবাদমাধ্যমগুলো।

ভারতীয় বিমানবাহিনীর এক স্কোয়াড্রন লিডার জানান, দেশজুড়ে সব বিমানবাহিনীর সদস্যরা প্রস্তুতি নিয়েছেন। যেকোনো চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি হওয়ার জন্য ট্রেনিং নিয়েছে বিমানবাহিনীর সদস্যরা। তিনি বলেছেন, ‘আমাদের জোশ সব সময় হাই।’

উত্তেজনার মধ্যেই কেঁপে উঠল লাদাখ

লাদাখে ভারত-চীন সীমান্তে বেশ কিছু দিন ধরেই উত্তেজনা বিরাজ করছে। এরই মধ্যে সেখানে দুই দেশের সেনা বাহিনীর মুখোমুখি সংঘর্ষে অন্তত ২০ ভারতীয় সেনা নিহত হয়েছে। এতে উত্তেজনা চরমে পৌঁছে যায়। এমন উত্তপ্ত অবস্থার মধ্যেই কেঁপে উঠল লাদাখ।

রবিবার ফের ভূমিকম্প কেঁপে ওঠে কাশ্মীরের লাদাখের কার্গিল এলাকা। রিখটার স্কেলে এই ভূকম্পনের মাত্রা ৪.৭। ভারতীয় সময় অনুসারে ভোর ৩ টে ৩৭ মিনিটে (বাংলাদেশ সময় ৪টা ৭ মিনিট) এই কম্পন অনুভূত হয়।

বিশেষজ্ঞরা জানাচ্ছেন, কার্গিল থেকে ৪৩৩ কিমি উত্তর পশ্চিমে এই কম্পন আঘাত হানে। ন্যাশনাল সেন্টার সিসমোলজি জানাচ্ছে, “৪.৭ মাত্রায় কার্গিল থেকে ৪৩৩ কিমি উত্তর পশ্চিমে এই ভূমিকম্প আঘাত হানে।”

ঘটনায় এখনও কোনও ক্ষয় ক্ষতি বা প্রাণ হানির খবর পাওয়া যায়নি। উল্লেখ্য, এর আগে বৃহস্পতিবারেই ভূ-কম্পনে কেঁপে উঠেছিল লাদাখের কার্গিল। সেদিন ওই কম্পনের মাত্রা ছিল ৪.৫।