• আজ
  • বুধবার,
  • ১৩ই ডিসেম্বর, ২০১৭ ইং
  • |
  • ২৯শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ


Text_2

ভুয়া ঠিকানা দিয়ে সাঁথিয়ায় পাউবো’র উপ-সহকারী প্রকৌশলী পদে চাকরি

প্রকাশ: ১৯ নভে, ২০১৭ | রিপোর্ট করেছেন ফারুক হোসেন

পাবনার বেড়া পানি উন্নয়ন বিভাগের সাঁথিয়া উপ-বিভাগে কর্মরত শাখা কর্মকর্তা (উপ-সহকারী প্রকৌশলী) শামীম আল মামুনের বিরুদ্ধে ভূয়া ঠিকানা ব্যবহার করে বাংলাদেশ পানি উন্নয়ন বোর্ডে চাকরি নেয়ার অভিযোগ উঠেছে।

অভিযোগে জানা যায়, উপ-সহকারী প্রকৌশলী শামীম আল মামুন সিরাজগঞ্জ জেলার চৌহালী উপজেলার কুরকী (কলেজ পাড়া) গ্রামের স্থায়ী বাসিন্দা মোঃ তোফাজ্জল হোসেন ও মোছাঃ শাহিদা খাতুনের ছেলে। সে সিরাজগঞ্জ জেলা কোঠায় বাংলাদেশ পানি উন্নয়ন বোর্ডে সার্ভেয়ার পদে চাকরির জন্য আবেদন করে। এদিকে সিরাজগঞ্জ জেলা কোঠায় চাকরি না হওয়ায় শামীম আল মামুন প্রতারনার আশ্রয় নেয়। সে নাটোর জেলার সিংড়া উপজেলার সিংড়া পৌরসভার কনজারভেন্সী ইন্সপেক্টর পদে কর্মরত তার ভাই মোঃ শহিদুল ইসলামের মাধ্যমে নাটোরের পারসাঐল গ্রামের ঠিকানায় ভূয়া নাগরিকত্ব সনদ সংগ্রহ করে।

পরে ২০১১ সালের জুলাই মাসে ভূয়া নাগরিকত্ব সনদপত্রের মাধ্যমে নাটোর জেলা কোঠায় সার্ভেয়ার পদে চাকরি নেয়। বর্তমানে সে সার্ভেয়ার পদ থেকে উপ-সহকারী প্রকৌশলী পদে (এসও) পদোন্নতি পেয়ে বেড়া পানি উন্নয়ন বিভাগের সাঁথিয়া উপবিভাগে শাখা কর্মকর্তা হিসেবে কর্মরত আছে। তার জন্মস্থান এবং স্থায়ী ঠিকানা হচ্ছে- সিরাজগঞ্জ জেলার, চৌহালী উপজেলার কুরকী কলেজপাড়া গ্রামে। তার বাবা-মা এবং সে সেখানে স্থায়ীভাবে বসবাস করে আসছে।

উপ-সহকারী প্রকৌশলী শামীম আল মামুনের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি পাবনা বার্তা ২৪ ডটকমকে জানান, নাটোরের সিংড়া উপজেলায় তার নানার বাড়ী। যমুনা নদীতে তাদের বাড়ী ভেঙে গেলে তার বাবা সিংড়া উপজেলার পারসাঐল গ্রামে বাড়ী করেছেন। ওই বাড়ীতে তার বড় দুই ভাই স্থায়ীভাবে বসবাস করছে।

এ ব্যাপারে পানি উন্নয়ন বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী আব্দুল হামিদ পাবনা বার্তা ২৪ ডটকমকে জানান, তিনি ভূয়া ঠিকানায় চাকরির কথা শুনেছেন, তবে এখনো খোঁজ নিয়ে দেখেননি।