• আজ
  • শুক্রবার,
  • ২২শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ইং
  • |
  • ১০ই ফাল্গুন, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ


Text_2

পাবনায় যুবলীগ নেতার হত্যায় বিএনপি নেতা আটক

প্রকাশ: ২২ জানু, ২০১৯ | রিপোর্ট করেছেন নিজস্ব সংবাদদাতা

পাবনার আতাইকুলার যুবলীগ নেতা হাফিজুর রহমান হত্যার নেপথ্যে রয়েছে চত্রা বিলের মাছের দখল নেওয়া। তবে এঘটনায় বিএনপির এক নেতাকের গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

এলাকাবাসীরা জানান, চত্রা বিলে লক্ষ লক্ষ টাকার মাছ থাকে, বর্তশানে বিলে পানি কমে যাওয়ায় ওই মাছের দিকে নজর পরে প্রভাবশালীদের। বিল দখল নেয়াকে কেন্দ্র করেই স্থানীয় আওয়ামী লীগের দুই গ্রুপের মধ্যে বিরোধ দীর্ঘদিনের। এরই জের ধরে এই হত্যাকান্ডের ঘটনা ঘটেছে বলে স্থানীয়দের ধারণা।

আতাইকুলা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মনিরুজ্জামান ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জানান, শ্রীপুর গ্রামের পার্শ্ববর্তী চত্রা বিলের মাছের দখল নেয়াকে কেন্দ্র করে দীর্ঘদিন ধরে হাফিজের সাথে একই এলাকার সাব্বির হোসেন নামের এক ব্যাক্তির সাথে বিরোধ চলছিল। এরই জের ধরে শনিবার সন্ধ্যায় সাব্বির ও হাফিজের মধ্যে কথা কাটাকাটির ঘটনা ঘটে। পরে রাতে হাফিজকে একা পয়ে একদল সন্ত্রাসী তাকে উপর্যুপরী ভাবে কুপিয়ে ফেলে রেখে যায়। পরে স্থানীয়রা দেখে তাকে পাবনা জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার সময় সে মারা যায়।

ওসি জানান, নিহত হাফিজুরের ভাই মনিরুল ইসলাম বাদি হয়ে ১৬ জনকে আসামী করে থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছে। রোববার রাতে পাবনা শহরে অভিযান চালিয়ে মামলার ৮ নম্বর আসামি রবিউল ইসলাম রবিকে গ্রেপ্তার করে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়েছে।

এদিকে পাবনা জেলা বিএনপির দপ্তর সম্পাদক জহুরুল ইসলাম জানান, গ্রেপ্তারকৃত রবিউল আটঘরিয়া উপজেলা বিএনপির যুগ্ম সাধারন সম্পাদক। তিনি লক্ষীপুর গ্রামের হাবিবুর রহমানের ছেলে। পুলিশ মিথ্যা মামলায় বিএনপি নেতাকে তার গ্রেফতার করে হয়রানি করছে। জেলা বিএনপি এঘটনার তীব্র নিন্দা জানিয়ে অবিলম্বে গ্রেফতারকৃত রবিউল ইসলাম রবির মুক্তির দাবী করেছে।